Home আন্তর্জাতিক পাম তেল রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করল ইন্দোনেশিয়া

পাম তেল রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করল ইন্দোনেশিয়া

7
0
SHARE

পাম তেল রপ্তানির ওপর জারি করা নিষেধাজ্ঞা তুলে নিচ্ছে ইন্দোনেশিয়া। ২৩ মে থেকে আগের মতোই দেশটি বিশ্বের বিভিন্ন দেশে পাম তেল রপ্তানি করবে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স প্রতিবেদনে জানিয়েছে, ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো বৃহস্পতিবার তার দেশ থেকে পাম তেল রপ্তানির নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

ইন্দোনেশিয়া বিশ্বের শীর্ষ পাম তেল উৎপাদক দেশ। অভ্যন্তরীণ বাজারে রান্নার তেলের দাম নিয়ন্ত্রণে গত ২৮ এপ্রিল অপরিশোধিত পাম তেল রপ্তানি বন্ধ করে দেয় দেশটি।

ইন্দোনেশীয় সরকারের লক্ষ্য ছিল, স্থানীয় বাজারে ভোজ্যতেলের দাম লিটারপ্রতি ১৪ হাজার রুপিয়ায় (প্রায় ৮৩ টাকা) নামানো। কিন্তু সেই লক্ষ্য পূরণ না হওয়ার আগেই দেশের ভেতরে ও বাইরে তীব্র চাপের মুখে শেষ পর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারে বাধ্য হলো উইদোদো প্রশাসন।

ইন্দোনেশিয়ায় পাম তেল রপ্তানি বন্ধের প্রতিবাদে গত মঙ্গলবার (১৭ মে) রাজধানী জাকার্তায় বিক্ষোভ করেন শত শত কৃষক। সরকারের ওই সিদ্ধান্তে রোজগার অর্ধেকে নেমে গেছে বলে অভিযোগ করেছেন তারা। নিষেধাজ্ঞা দ্রুততম সময়ে প্রত্যাহার না হলে এর চেয়েও বড় আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন দেশটির পাম চাষিরা।

এছাড়া পাম রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা দেয়ার পর থেকে দ্রুত জনপ্রিয়তা হারান ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। এরইমধ্যে তার জনসমর্থন গত ছয় বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন পর্যায়ে চলে গেছে।

ইন্ডিকেটর পলিটিক ইন্দোনেশিয়া নামে স্থানীয় একটি সংস্থার পরিচালিত জরিপে দেখা গেছে, চলমি মে মাসে জোকো উইদোদোর জনসমর্থন ৫৮ দশমিক ১ শতাংশে নেমে গেছে, যা ২০১৫ সালের ডিসেম্বরের পর থেকে সর্বনিম্ন। সেসময় ৫৩ শতাংশে নেমেছিল তার জনসমর্থন। চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে এপ্রিলের মধ্যেই ১২ পয়েন্ট হারিয়েছেন ইন্দোনেশীয় প্রেসিডেন্ট।

স্থানীয় বাজারে দাম কমানোর কথা জানিয়ে গত ২২ এপ্রিল পাম তেল রপ্তানি নিষিদ্ধ ঘোষণা করেন উইদোদো, ২৮ এপ্রিল থেকে কার্যকর হয় এ সিদ্ধান্ত। ঘোষণার সময় তিনি বলেছিলেন, দেশীয় বাজারে মূল্য নিয়ন্ত্রণে আসলেই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া হবে। তবে দেশটিতে এখনো তেলের দাম চড়া।

ইন্দোনেশীয় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্যমতে, গত শুক্রবার পর্যন্ত দেশটিতে প্রতি লিটার ভোজ্যতেলের দাম ছিল গড়ে ১৭ হাজার ৩০০ রুপিয়া (১০৩ টাকা প্রায়)।

এর আগে ইন্দোনেশিয়ার মুখ্য অর্থমন্ত্রী এয়ারলাঙ্গা হার্তার্তো জানিয়েছিলেন, প্রতি লিটার ভোজ্যতেলের দাম গড়ে ১৪ হাজার রুপিয়ায় (প্রায় ৮৩ টাকা) নামলেই রপ্তানি নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হবে।

এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার ইন্দোনেশীয় প্রেসিডেন্ট এক ভিডিওবার্তায় বলেছেন, দেশটির ১ কোটি ৭০ লাখ পাম চাষির জীবিকার কথা বিবেচনায় রপ্তানি নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হচ্ছে।