Home আইন আদালত
69
0
SHARE

বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলায় হামিদা বেগম (৪৫) নামের এক গৃহবধূকে হত্যার দায়ে স্বামী বাচ্চুকে (৫৮) মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। আজ বুধবার বরগুনার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক এ এইচ এম ইসমাইল হোসেন এ রায় দেন।

রায় ঘোষণার সময় বাচ্চু আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

মামলার সূত্রে জানা গেছে, পারিবারিক কলহের জেরে ২০০৮ সালের ২৭ আগস্ট রাতে হামিদাকে মাথায় আঘাত করে হত্যার পর খাল পাড়ে মাটিচাপা দেন বাচ্চু। পরের দিন হামিদার বাবার বাড়িতে গিয়ে তিনি জানান, হামিদাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। বাচ্চুর কথা ও আচরণে গ্রামবাসীর সন্দেহ হয়। ওই বছরের ১৫ সেপ্টেম্বর স্থানীয়রা বাচ্চুকে আটক করে চাপ প্রয়োগ করলে তিনি স্ত্রীকে হত্যার কথা স্বীকার করেন। গ্রামবাসী ওই দিনই বাচ্চুকে পুলিশে সোপর্দ করে। এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূর মা জাহানারা বেগম বাদী হয়ে পাথরঘাটা থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।

রাষ্ট্রপক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন অতিরিক্ত সরকারি কৌঁসুলি আকতারুজ্জামান বাহাদুর। আর আসামি পক্ষে ছিলেন আইনজীবী কমল কান্তি দাস।